Breaking »

Warning: include(/home/shesherk/public_html/wp-content/themes/shesherkhobor/single-sidebar.php): failed to open stream: No such file or directory in /home/shesherk/public_html/wp-content/themes/shesherkhobor/single.php(2) : eval()'d code(1) : eval()'d code on line 2

Warning: include(): Failed opening '/home/shesherk/public_html/wp-content/themes/shesherkhobor/single-sidebar.php' for inclusion (include_path='.:/usr/lib/php:/usr/local/lib/php') in /home/shesherk/public_html/wp-content/themes/shesherkhobor/single.php(2) : eval()'d code(1) : eval()'d code on line 2

কুতুবদিয়া উপকুলে আসছে বর্ষা, কাদঁছে পানিবন্দি মানুষ

এম.শাহজাহান চৌধুরী শাহীন, কক্সবাজার, ১৫ জুন \

বর্ষা শুরম্ন। সেই সাথে বেড়েছে কুতুবদিয়া উপকুলবাসীর কান্না। বর্ষা আসলেই শুরম্ন হয় বেড়িবাঁধে ভাঙ্গন। চলে জোয়ারভাটা। শুরম্ন হয় জনদূর্ভোগ। গৃহহীন হয় অনেক পরিবার। আবারও স্বপ্ন দেখে বেঁচে থাকার। গত তিন যুগ ধরেই সাগরের সাথে যুদ্ধ করে এভাবেই ঠিকে আছে কুতুবদিয়া উপকুলের মানুষ। বর্ষা শুরম্নতেই কুতুবদিয়ার বিভিন্ন স্থানে বেড়িবাuঁধ ভাঙ্গন শুরম্ন হয়েছে। কাদছে  পানিবন্দি মানুষ।

গত বুধবার থেকে উপজেলার উত্তর ধুরম্নং আকবরবলী পাড়া চর ধুরম্নং এলাকায় ভাঙ্গা বেড়িবাঁধ দিয়ে ও বেড়িবাঁধ ভেঙ্গে সাগরের লোনা পানিতে তলিয়ে গেছে ৫ গ্রাম।  জোয়ারের পানি প্রবেশ অব্যাহত রয়েছে। এসব এলাকার অমত্মত ৫০ টি কাঁচা ঘর-বাড়ি ইতিমধ্যে ক্ষতিগ্রসত্ম হয়েছে ।

নতুন নতুন এলাকার মানুষ হয়ে পড়ছে পানিবন্দী। উপজেলা নির্বাহি কর্মকর্তা, উপজেলা চেয়ারম্যানসহ স্থানীয় জনপ্রতিনিধিরা ক্ষতিগ্রসত্ম এলাকা পরিদর্শন করেছেন। টেকসই বেড়িবাঁধ নির্মাণ না করায় এবং বেড়িবাঁধ নির্মাণ ও সিসি বস্নক স্থাপনে ঠিকাদারের দুর্নীতি আর অনিয়মকে দায়ী করছেন স্থানীয়রা।

স্থানীয়দের মতে, প্রতিনিয়িত ভাঙ্গনের কবলে পড়ে সাগর গর্ভে চলে যাচ্ছে আকবর বলী পাড়া চর ধুরম্নং এলাকার অর্ধেক অংশ। গত এক বছরে বেড়িবাঁধের পাশে থাকা অমত্মত ৫০টি বাড়ি পর্যায়ক্রমে সাগর গর্ভে বিলীন হয়ে গেছে । এছাড়াও আকবরবলী জেটি ঘাটে অবস্থিত ১৪/ ১৫টি দোকান ভাঙ্গনের ঝুঁকিতে রয়েছে।

এলাকাবাসি জানায়,চর ধুরম্নং ,আকবর বলী পাড়া,পূর্ব চর ধুরম্নং এলাকার বেড়িবাuঁধর প্রায় দুই কিলোমিটার বেড়িবাঁধ এখনো খোলা রয়েছে। এ সব এলাকায় অমত্মত ২০টি স্থান দিয়ে নিয়মিত জোয়ারের পানি প্রবেশ করছে ভিতরে। এতে তলিয়ে গেছে পূর্ব চর ধুরম্নং,নয়াকাটা,মনছুর হাজির পাড়া,কোদাইল্যা পাড়া সহ ফসলি জমি। চলতি বর্ষা শুরম্নতেই জোয়ারের তীব্রতায় ভাঙ্গন বেড়েই চলেছে। ফয়জানি পাড়ায় মাত্র কয়েক চেইন সিসি ব­ক নির্মাণের কাজ চললেও চরধুরম্নং,আকবর বলী পাড়া এলাকায় ভাঙ্গন রোধে পানি উন্নয়ন বোর্ড এর পÿ থেকে কোন পদক্ষেপ নেয়া হয়নি।

স্থানীয় বাসিন্দা নুরম্নল কাদের, মিজবাহ উদ্দিন, আমির হোসেন, জামাল হোসেন, হামিদ উল­াহ, রহিম উল­াহ, শফি উল­াহ ও পারভেজসহ বেড়িবাঁধে ভাঙ্গনের শিকার আরো অনেক স্থানীয় বাসিন্দা জানান, দীর্ঘ দিন ধরে বিশেষ করে বর্ষা মৌসুমে বেড়িবাঁধ ভাঙ্গনের কবলে পড়ায় তাদের বসত ভিটা সাগরগর্ভে চলে গেছে। দিনের পর দিন তারা বাঁচার সংগ্রাম করেও রক্ষা পাচ্ছেননা তারা। সাগরের লবনাক্ত পানি প্রবেশ করে তলিয়ে যাচ্ছে নিত্য নতুন বাড়ী ঘর।  গত কয়েক দিনের ভাঙ্গন তীব্রতর হয়েছে। পানি উন্নয়ন বোর্ডের কেউ খোঁজ নিতে আসেনি বলে তারা জানান।

স্থানীয় ইউপি সদস্য ওমর ফারম্নক বলেন,বেড়িবাuঁধর বিশাল একটি অংশ বিধসত্ম হয়েছে গত বর্ষায়। কিন্তু পানি উন্নয়ন বোর্ড তা সংস্কার করেনি। গত বুধবার থেকে বেড়িবাঁধের অমত্মত ১৫/২০টি বিলিন স্থান দিয়ে পানি প্রবেশ করছে। তলিয়ে যাচ্ছে বসত ভিটা সহ নিম্নাঞ্চল। আরো ২/৩  জোয়ার ভাটা থাকায় ভাঙ্গনও অব্যাহত থাকবে। ভাঙ্গন বেড়ে যাওয়ায় হুমকির মখে পড়েছে আকবর বলী ঘাটে ইউনুছ,মিজান,কলিম উল­াহ,কাইয়ুম এর ১৫টি দোকানসহ ব্যবসা প্রতিষ্ঠান। জরম্নরী ভাবে বেড়িবাঁধ রক্ষা না হলে দোকান-পাট চলে যাবে সাগর বক্ষে। পাউবো‘র কেউ ভাঙন এলাকায় আসেননি বলে তিনি জানান।

কুতুবদিয়া উপজেলা নির্বাহি কর্মকর্তা মোঃ মমিনুর রশীদ বলেন,চরধুরম্নং এলাকায় বিধবসত্ম বেড়িবাধঁ দিয়ে জোয়ারের পানি প্রবেশ করায় ভাঙ্গন তীব্রতর হয়েছে। জরম্নরী ভিত্তিতে ক্ষতিগ্রসত্ম বেড়িবাঁধ নির্মাণের পরিকল্পনা নেয়া হচ্ছে। লবনাক্ত পানি প্রবেশ করায় অতিরিক্ত ক্ষতিগ্রসত্ম পরিবারগুলোর তালিকা তৈরি করা হবে বলে জানান তিনি।

এদিকে কক্সবাজার পানি উন্নয়ন বোর্ডের উপ-সহকারি ফজলে রাবিবর মুঠো ফোনে কয়েক বার  যোগাযোগ করে মোবাইল ফোনে রিং হলেও তিনি রিসিভ না করায় চরধুরম্নং আকবর বলী পাড়ায় ভাঙ্গা বেড়িবাঁধ দিয়ে সাগরের পানি প্রবেশ করে তীব্রতর ভাঙ্গন মোকাবেলায় করনীয় সম্পর্কে কিছু জানা যায়নি।

 রিপোর্ট »মঙ্গলবার, ১৭ জুন , ২০১৪. সময়-১০:৩০ pm | বাংলা- 3 Ashar 1421
WEBSBD.NET
রিপোর্ট শেয়ার করুন  »
Share on Facebook!Digg this!Add to del.icio.us!Stumble this!Add to Techorati!Seed Newsvine!Reddit!
EDITOR;ABUL HOSSAIN LITON, DHAKA OFFICE; NAHAR MONZILl,BOX NAGAR,DEMRA,DHAKA.OFFICE;MAHESHPUR,JHENAIDAH,BANGLADESH. Copyright © 2011 » All rights reserved http/shesherkhobor.com, MOB: 8801711245104,Email:shesherkhobor@gmail.com 
☼ Provided By  websbd.net  » System  Designed by HELAL .
GO TOP