Breaking »

Warning: include(/home/shesherk/public_html/wp-content/themes/shesherkhobor/single-sidebar.php): failed to open stream: No such file or directory in /home/shesherk/public_html/wp-content/themes/shesherkhobor/single.php(2) : eval()'d code(1) : eval()'d code on line 2

Warning: include(): Failed opening '/home/shesherk/public_html/wp-content/themes/shesherkhobor/single-sidebar.php' for inclusion (include_path='.:/usr/lib/php:/usr/local/lib/php') in /home/shesherk/public_html/wp-content/themes/shesherkhobor/single.php(2) : eval()'d code(1) : eval()'d code on line 2

এআইএন প্রকল্পের বিএসপি চিংড়ি চাষ পদ্ধতি বদলে দিল মুনসুর মোড়লে ভাগ্য

পাইকগাছা (খুলনা) প্রতিনিধি:

বাংলাদেশ দক্ষিন পশ্চিম অঞ্চলের কপিলমুনির পার্শ্ববর্তী সাতক্ষীরা জেলার তালা উপজেলার প্রসাদপুর গ্রামের মুনসুর আলী মোড়ল, পিতা- মৃত: বুদু মোড়ল একজন অতি পুরাতন চিংড়ি চাষী। তিনি প্রায় ১৫ বছর ধরে চিংড়ি চাষ করে আসছেন, যা তার আয়ের একমাত্র অবলম্ভন। কিন্তু আধুনিক চিংড়ি চাষ পদ্ধতি সম্পর্কে কোন ধারনা না থাকায় সনাতন পদ্ধতি চিংড়ি চাষ করে আসছিলেন, এবং চিংড়ি উৎপাদন ভাল না পাওয়ায় জীবন যাত্রার মান অতি নিম্ন পর্যায়ে চলে আসছিল। ফলে পারিবারিক ও ছেলে মেয়েদের লেখাপড়ার খরচ বহন করা তার জন্য খুবই কষ্টকর হয়ে দাঁড়ায়। তাই চিংড়ি পেশাকে বাদ দিয়ে অন্য পেশার মাধ্যমে আয় করার চিন্তাভাবনা করেন। ঠিক এমনই সময় ২০১২ সালের প্রথম দিকে ইউএসএ আইডি এর অর্থায়নে ওয়ার্ল্ড ফিস বাংলাদেশ কর্তৃক বাস্তবায়নকৃত এ্যাকুয়া কালচার ফর ইনকার্ম এন্ড নিউট্রিশন (এআইএন) প্রকল্পের সম্প্রসারন সহায়ক এর সঙ্গে স্বাক্ষত হয় এবং প্রকল্পের চিংড়ি চাষী গ্রুপের একজন সদস্য হিসেবে অংশ গ্রহন করেন। তিনি প্রকল্পের প্রত্যেকটি প্রশিক্ষনে অংশ গ্রহন করেন। আধুনিক ও পরিবেশ বান্ধব চিংড়ি চাষ ব্যবস্থাপনা বিভিন্ন বিষয়ে যেমন, সঠিক নিয়মে ঘের প্রস্ত্তত করন, মজুদ পূর্বক, পরবর্তী সার মজুদ ব্যবস্থাপনা, পানির গুনাগুন, খাদ্য ও রোগ ব্যবস্থাপনা ইত্যাদির উপর যথেষ্ট জ্ঞান লাভ করেন। তিনি ২০১২ সালের প্রশিক্ষন অনুযায়ী ঘের পরিচালনা না করতে পারলেও ২০১৩ সালের জানুয়ারী থেকে সঠিক নিয়মে বিএসপি পদ্ধতিতে ঘের পরিচালনা শুরু করেন। এর ফলস্বরূপ তিনি তার ১৩২ শতক ঘেরে ২৫হাজার চিংড়ি পোনা মজুদ করে এ পর্যন্ত ৪৬২ কেজি বাগদা চিংড়ি উৎপাদন করতে সক্ষম হয়েছেন। যহার বাজার মূল্য ৩লক্ষ ৩শত টাকা। তিনি ধারনা করেছেন সামনের বাকি সময় তিনি আরও ৭০-৭৫কেজি চিংড়ি পাবেন বলে আশা করেন। যা তিনি কখনই কল্পনায় করতে পারেনি। বর্তমান তিনি অর্থনৈতিক ভাবে সামলম্বী হতে পেরেছেন এবং পরিবর্তন ঘঠেছে তার ভাগ্য। সাথে সাথে তার পারিবারিক খরচ ও ছেলে মেয়েদের লেখাপড়ার খরচ চালানো সহজ হয়েছে। বেড়ে গেছে তার জীবন যাত্রার মান। পাশাপাশি তার এই সাফল্য তার আত্মবিশ্বাস যেমন বেড়ে গেছে তেমনই আশে পাশের চিৎড়ি চাষীরা তার এই আধুনিক চিংড়ি চাষ পদ্ধতি গ্রহনে উদ্বৃদ্ধ হয়েছে। তার এই সাফল্যের জন্য প্রকল্পের সংশ্লিষ্টর প্রতি কৃতজ্ঞা প্রকাশ করেন এবং অন্যান্য চাষীদেরকে এই চাষ ব্যবস্থাপনা গ্রহনের জন্য আহবান জানান।

 রিপোর্ট »বৃহস্পতিবার, ৩ অক্টোবার , ২০১৩. সময়-৮:২৮ pm | বাংলা- 18 Ashin 1420
WEBSBD.NET
রিপোর্ট শেয়ার করুন  »
Share on Facebook!Digg this!Add to del.icio.us!Stumble this!Add to Techorati!Seed Newsvine!Reddit!
EDITOR;ABUL HOSSAIN LITON, DHAKA OFFICE; NAHAR MONZILl,BOX NAGAR,DEMRA,DHAKA.OFFICE;MAHESHPUR,JHENAIDAH,BANGLADESH. Copyright © 2011 » All rights reserved http/shesherkhobor.com, MOB: 8801711245104,Email:shesherkhobor@gmail.com 
☼ Provided By  websbd.net  » System  Designed by HELAL .
GO TOP